মাহে রমজান উপলক্ষ্যে .. .. দুই

Permission taken from Source  http://prothom-aloblog.com/users/base/tasnima/

আবু হোরায়রা (রা) র্কতৃক র্বণিত, আল্লাহর নবী (সা) বলেছেন, আল্লাহ তাঁর যে বান্দার গোনাহ ইহকালে গোপন করেছেন, পুনরুথ্থানের দিনেও আল্লাহ তার গোনাহ গোপন রাখবেন। (সহীহ মুসলিম-৬২৬৬)

আবু হোরায়রা (রা) র্কতৃক র্বণিত, আল্লাহর নবী (সা) বলেছেন, আমার সকল উম্মত তাদের গোনাহের জন্য ক্ষমা পাবে শুধু তারা ব্যতীত যারা নিজেদের গোনাহের কথা প্রচার করে বেড়ায়। এবং কোন বান্দা রাত্রিকালীন সময়ে কোন কাজ করে আর দিনের বেলা সকলকে বলে বেড়ায় যে সে অমুক অমুক কাজ করেছে, অথচ আল্লাহ তা লুকিয়ে রেখেছেন। এবং কোন বান্দা দিনেরবেলা কোন গোনাহের কাজ করে আর রাতে সকলকে বলে বেড়ায় যে সে অমুক অমুক কাজ করেছে, অথচ আল্লাহ তা লুকিয়ে রেখেছেন। জুবায়ের প্রচার শব্দের জন্য ‘হিজর’ শব্দ ব্যবহার করেছেন। (সহীহ মুসলিম-৭১২৪)

উপরোক্ত দু’টি হাদিসের সাথে বেশ কয়েকটি বিষয় সম্পর্কিত। প্রথম হাদিসটিতে গোনাহের কথা গোপন রাখার ফলাফল অর্থাৎ কেয়ামতের দিন আল্লাহর রহমতে গোনাহ থেকে মুক্তি পাবার কথা উল্লেখ করা হয়েছে। দ্বিতীয় হাদিসে গোনাহের কথা প্রচার করার ফলাফল র্বণিত হয়েছে যে, গোনাহের কথা প্রচারকারীরা ক্ষমা পাবে না। গোনাহের কথা প্রচার করা বলতে আনন্দচিত্তে, র্গবভরে সবার সামনে নিজের অপর্কমের কথা তুলে ধরাকে বোঝানো হয়েছে। এটা অবশ্যই নিন্দনীয়। এ কাজের সাথে বেশ ক’টি গোনাহ সম্পৃক্ত।
১. ইসলামের দৃষ্টিতে নিন্দনীয় নিষিদ্ধ কোন কাজে লিপ্ত হওয়া। হযরত আব্দুল্লাহ ইবনে আমর (রা) র্কতৃক র্বণিত, হযরত নবী করীম (সা) বলেছেন, প্রকৃত মুসলিম সে, যার হাত ও মুখ থেকে মুসলমানরা নিরাপদ থাকে। আর মুহাজির সে, যে আল্লাহর নিষিদ্ধ কাজ থেকে বিরত থাকে। (সহীহ বোখারী – ৩৩৫৩)
২. র্গবভরে অহঙ্কারের সাথে তা মানুষের কাছে প্রচার করা। কারণ আল্লাহসুবহানাহুতাআলা সুরা লোকমানে বলেন, “অহংকারবশে তুমি মানুষকে অবজ্ঞা করো না ও পৃথিবীতে র্গবভরে পদচারণা করো না। ণিশ্চয়ই আল্লাহ কোন দাম্ভিক অহংকারীকে পছন্দ করেন না।”
আর হাদিসে রয়েছে- আবু সায়িদ খুদরী (রা) ও আবু হোরায়রা (রা) র্কতৃক র্বণিত, আল্লাহর নবী (সা) বলেছেন, আল্লাহ যিনি র্মযাদার্পূণ এবং মহিমাময় , বলেন, “ গৌরব হচ্ছে তাঁর পোশাক এবং র্মযাদা তাঁর আবরণ এবং ( আল্লাহ বলেন, ) যে আমার সাথে এ দুইটি বিষয় নিয়ে প্রতিযোগিতা করে তাকে আমি তীব্র যন্ত্রণায় নিপতিত করব।”

হাদিসে আরো রয়েছে-
হযরত জুন্দুব (রা) র্কতৃক র্বণিত, আল্লাহর নবী (সা) বলেছেন, যে ব্যক্তি তার কৃতর্কমের সুনামের জন্য লোকসমাজে ইচ্ছার্পূবক প্রচার করে বেড়ায়, আল্লাহতাআলাও তার কৃতর্কমের প্রকৃত উদ্দেশ্যের কথা লোকদের জানিয়ে শুনিয়ে দেবেন। আর যে ব্যক্তি লোক দেখানো ও প্রশংসা লাভের উদ্দশ্যে কোন সৎকাজ করবে, আল্লাহও তার প্রকৃত উদ্দশ্যের কথা লোকের মাঝে প্রকাশ করে দেবেন। (সহীহ বোখারী ৩৪৩১, সহীহ মুসলিম-৭১১৫) ইবনে আব্বাস (রা) রাসূলুল্লাহ (সা) হতে অনুরূপ হাদীস র্বণনা করেছেন।
৩. গোনাহের কথা মানুষকে জানানোর মাধ্যমে অন্যদের গোনাহের কাজে লালায়িত করা । যেমন অসৎপথে অর্থ উর্পাজন করে অন্যকে তা জানানোর মাধ্যমে তার মনেও অসৎপথে অর্থ উর্পাজনের লালসা সৃষ্টি করা ।
হযরত আবু হোরায়রা (রা) র্কতৃক র্বণিত, আমি আল্লাহর নবী (সা) কে বলতে শুনেছি, আল্লাহর বান্দা কোন কোন সময় এমন কথা বলে ফেলে যার ফলে সে জাহান্নামে প্রবেশ করবে। অথচ (ইতির্পূবে) সে তার থেকে র্পূব-পশ্চিম পরিমাণ দূরত্বে ছিল। (সহীহ বোখারী-৩৩৫১, সহীহ মুসলিম-৭১২০)

গোনাহের কথা প্রচার আর গোনাহের কথা অপরের কাছে স্বীকার করা – দু’টি ভিন্ন বিষয়। অপরাধকারী ব্যক্তি যদি নিজের অপরাধের জন্য অনুতপ্ত হয়ে অত্যাচারীতের কাছে অপরাধের কথা স্বীকার করে, লজ্জিত হয় ও আন্তরিকভাবে ক্ষমা র্প্রাথনা করে, তবে তা নিন্দনীয় নয়। বরং এমন করার জন্য আল্লাহই র্নিদেশ দিয়েছেন। যেমন হত্যার ক্ষেত্রে কেসাস গ্রহণকারীর কাছে হত্যাকারী ক্ষমা চাইতে পারে ও কেসাস গ্রহণকারী চাইলে তাকে ক্ষমা করতে পারে। এ ব্যাপারটি প্রচারের র্পযায়ে পড়ে না কারণ অপরাধী এস্থলে দম্ভভরে জনসমক্ষে নয়, বরং প্রায়শ্চিত্ত করার মানসিকতা নিয়ে অত্যাচারীতের কাছে নিজের কৃত দুষ্কর্মের বিবরণ জানাচ্ছে । যদি অত্যাচারীত অপরাধীকে ক্ষমা করে দেয় তবে আল্লাহও অপরাধীকে পুরুথ্থানের দিন ক্ষমা করে দেবেন।

একইভাবে অপরাধী সঠিকপথে ফিরে আসার পর অন্য কাউকে অসৎপথে গমন হতে বিরত রাখার অভিপ্রায়ে যদি তার কাছে নিজের উদাহরণ তুলে ধরে, অসৎপথ হতে তার সৎপথে প্রত্যার্বতনের বিবরণ তুলে ধরে তবে তাও প্রচার হবে না। বরং একজনকে সদুপদেশ দান করার ও অসৎপথ হতে বিরত রাখার সওয়াব সে পাবে।

সুতরাং এ রমজান মাসে ও আগামীতেও আমরা যেন গোনাহের কথা বলা থেকে বিরত থাকি, জিহ্বার রোজাও রাখি অর্থাৎ জিহ্বাকে খারাপ কথা বলা থেকে বিরত রাখি।

Leave a Reply

Fill in your details below or click an icon to log in:

WordPress.com Logo

You are commenting using your WordPress.com account. Log Out / Change )

Twitter picture

You are commenting using your Twitter account. Log Out / Change )

Facebook photo

You are commenting using your Facebook account. Log Out / Change )

Google+ photo

You are commenting using your Google+ account. Log Out / Change )

Connecting to %s

%d bloggers like this: